মঙ্গলবার, ৯ অগাস্ট ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

আল আকসায় ইসরাইলি হামলাকে ‘যুদ্ধের ঘোষণা’ বলছে হামাস




দখলকৃত পূর্ব জেরুজালেমের আল-আকসা মসজিদে ইসরাইলি বাহিনীর হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে ফিলিস্তিনের ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন হামাস। আল-আকসা প্রাঙ্গণে ইসরাইলি পুলিশের হামলাকে ‘যুদ্ধের ঘোষণা’ হিসেবে দেখছে ফিলিস্তিনিরা।

শুক্রবার দখলকৃত পূর্ব জেরুজালেমের আল-আকসা মসজিদে ইসরাইলি বাহিনীর অভিযানে ১৫২ জন আহত হয়েছেন, এই ঘটনায় গ্রেফতার হয়েছেন আরও ৩০০ ফিলিস্তিনি।

হামাসের রাজনৈতিক ব্যুরোর প্রধান ইসমাইল হানিয়া বলেন, ফিলিস্তিনি জনগণ যে কোনো মূল্যে আল-আকসা মসজিদকে রক্ষা করবে। জেরুজালেমে ‘অনুপ্রবেশকারী’দের জায়গা নেই।

জেরুজালেম ও আল-আকসা মসজিদের সমর্থনে ঐক্যবদ্ধ হতে ফিলিস্তিনি ও ইসরাইলিদের প্রতিও আহ্বান জানিয়েছে হামাস।

হামাসের বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ইসরাইলি দখলদার বাহিনী এবং ইহুদি সম্প্রদায় পবিত্র এই স্থানটি দখলের চেষ্টায় মত্ত। এই আগ্রাসন বন্ধে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে এগিয়ে আসতে হবে।

শুক্রবার ফজরের নামাজের সময় কয়েক হাজার মুসল্লি আল-আকসা মসজিদে যান। ইহুদি দর্শনার্থীদের চলাচলের পথ করে দিতে সে সময় মুসল্লিদের বেধড়ক পেটায় ইসরাইলি পুলিশ। এতে আহত হন অন্তত ১৫৮ জন, আটক হন ৩০০ ফিলিস্তিনি।

ফিলিস্তিনি রেড ক্রিসেন্ট আরও জানিয়েছে, ঘটনাস্থলে অ্যাম্বুলেন্স ও চিকিৎসকদের যেতেও বাধা দেয় ইসরাইলি বাহিনী। ৬৭ জনকে উদ্ধার করে হাসপাতলে নেওয়া হয়েছে।

সম্পাদক: শাহ সুহেল আহমদ
প্যারিস ফ্রান্স থেকে প্রচারিত

সার্চ/খুঁজুন: