রবিবার, ২৬ মে ২০২৪ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্যারিসে নানা আয়োজনে অমর একুশে পালিত




শাহ সুহেল আহমদ:

হাজারো কন্ঠে একুশের গান, র্যালি, ফ্রান্সে বেড়ে ওঠা শিশু-কিশোরদের ৫২’র ভাষা আন্দোলনের উপরে চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতাসহ নানা আয়োজনে প্যারিসে পালিত হয়েছে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস ও জাতীয় শহীদ দিবস।

হাজারো প্রবাসী, বিদেশী অতিথি ও রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক, পেশাজীবী সংগঠনের অংশ গ্রহণে ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে জোরেস পার্কে নির্মিত অস্থায়ী শহীদ মিনারে ভাষা শহীদদের প্রতি সম্মান জানিয়ে শহীদ বেদীতে পুষ্পস্তবক অর্পণ ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।


একুশে উদযাপন পরিষদ ফ্রান্সের উদ্যোগে আয়োজিত অনুষ্ঠানে পরিষদের আহ্বায়ক সুব্রত ভট্টাচার্য শুভ এর সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব এমদাদুল হক স্বপনের পরিচালনায় শহীদ বেদিতে একে এক পুষ্পস্তবক অর্পন করেন বাংলাদেশ দূতাবাসের পলিটিক্যাল মিনিস্টার কাজী এহসানুল হক, দূতাবাসের প্রতিরক্ষা উপদেষ্টা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মিজানুর রহমান, প্যারিস-১০ এর ডেপুটি মেয়র সিলভা রেফ, ফ্রান্স আওয়ামী লীগের সভাপতি এমএ কাশেম, সাধারণ সম্পাদক দিলওয়ার হোসেন কয়েস, সিনিয়র সহসভাপতি আবুল কাশেম, মুক্তিযোদ্ধা নাসির চৌধুরী, একুশ উদযাপন পরিষদের সাবেক আহবায়ক টিএম রেজা, কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব শরিফুল মমিন, শাহ জাহান রহমান, শাহজাহান শারু, ইবনে সুহেল, ফয়সাল উদ্দিন, হোসেন সালাম রহমান, ওবায়দুল ইসলাম রিয়াদ প্রমুখ।

এছাড়াও বিভিন্ন সংগঠনের মধ্যে বাংলাদেশ দূতাবাস, ফ্রান্স আওয়ামী লীগ, ইউরোপিয়ান বাংলাদেশ এসোসিয়েশন (আয়েবা) ফ্রান্স, বাংলাদেশ ইকোনমিক চেম্বার, বাংলা অটো স্কুল গ্যারেজ, ঢাকা বিভাগ অ্যাসোসিয়েশন, সিলেট বিভাগ সমাজ কল্যাণ সমিতি, বরিশাল ডিভিশন অ্যাসোসিয়েশন, বাংলাদেশ ইয়ুথ ক্লাব, স্বরলিপি শিল্পী গোষ্ঠী ফ্রান্স, ইপিএস কমিউনিটি ইন ফ্রান্স, অল ইউরোপিয়ান বাংলা প্রেসক্লাব, ইউরো বাংলা প্রেসক্লাব ফ্রান্স, ফ্রান্স বাংলা প্রেস ক্লাব, উত্তরবঙ্গ সমিতি, গাজীপুর জেলা সমিত, বাংলাদেশ ইয়ুথ ক্লাব, শাহজালাল স্পোর্টিং ক্লাব, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, দুর্গা বাড়ি পূজা উদযাপন পরিষদ, বাংলাদেশ সার্বজনীন পূজা উদযাপন পরিষদ, মুক্তিযোদ্ধা সংহতি পরিষদ, গোলাপগঞ্জ হেলপিং ফাউন্ডেশন, ঘাতক দালাল নিমূল কমিটি, ফ্রান্স যুব লীগসহ অসংখ্য সংগঠন শহীদ বেদীতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন- ভাষার জন্য প্রাণ দিয়েছে, এমন নজির বিশ্বের ইতিহাসে দ্বিতীয়টি আর নয়। মাতৃভাষার সম্মান রক্ষার্থে এতখানি আত্মত্যাগ আর কোনো জাতি করেনি। একুশে ফেব্রুয়ারি শুধু বাংলা ভাষাকে স্বমর্যাদায় আসীন করার বিচ্ছিন্ন সংগ্রাম নয়, আত্মচেতনা সমৃদ্ধ জাতীয় জাগরণের উন্মোষ মুহূর্ত। শোষকের বিরুদ্ধে ন্যায়ের, কূপমন্ডূকতা ও সংকীর্ণতার বিরুদ্ধে উদার মানসিকতার, খণ্ডিত অধিকারের বিরুদ্ধে সামগ্রিক অধিকারের এবং অসুন্দরের বিরুদ্ধে সুন্দরের চিরন্তন সংগ্রামের স্মারক একুশ।

একুশে উদযাপন পরিষদের পক্ষ থেকে আগামীতে বইমেলাসহ আরো বিভিন্ন ধরনের কর্মসূচি নেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন আয়োজকেরা। উল্লেখ্য, ২০০৪ সাল থেকে একুশে উদযাপন পরিষদ প্যারিস বন্ধু মরহুম শহিদুল আলম মানিকের নেতৃত্বে এই দিবসটি উদযাপন করে আসছে।

সম্পাদক: শাহ সুহেল আহমদ
প্যারিস ফ্রান্স থেকে প্রচারিত

সার্চ/খুঁজুন: