বৃহস্পতিবার, ৭ জুলাই ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৩ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ফ্রান্সে করোনা আক্রান্ত প্রবাসীদের কোনো হিসেব নেই দূতাবাসে




শাহ সুহেল আহমদঃ

ফ্রান্সে করোনায় আক্রান্ত প্রবাসী বাংলাদেশীদের কোনো পরিসংখ্যান নেই বাংলাদেশ দূতাবাসের কাছে। আর এজন্য ফ্রান্সে কতজন বাংলাদেশী আক্রান্ত হয়েছেন কিংবা কতজন মারা গেছেন, তার কোনো সঠিক তথ্য পাচ্ছেন না প্রবাসীরা। এতে অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

বিভিন্ন সূত্র মতে, ফ্রান্সে অন্তত অর্ধশতাধিক প্রবাসী বাংলাদেশী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে তিন জনের মৃত্যুর হয়েছে। অথচ এই আক্রান্ত কিংবা মৃত্যু, কোনোটিরই হিসেব নেই দূতাবাসের কাছে।

তবে এর কারণও ব্যাখ্যা করেছেন ফ্রান্সে নিযুক্ত বাংলাদেশী রাষ্ট্রদূত কাজী ইমতিয়াজ হোসেন। এ প্রতিবেদকের সাথে আলাপকালে তিনি বলেন- ফ্রান্স সরকার আমাদের কাছে এ বিষয়ে কোনো তথ্য দেয় না। ফলে আমরাও কোনো তথ্য পাই না। দূতাবাসের পক্ষ থেকে তথ্য সংগ্রহ করার কোনো চেষ্টা করা হয়েছে কি না জানতে চাইলে রাষ্ট্রদূত বলেন- ‘ফ্রান্স খুব সংকটকালীন সময় পার করছে। ফলে এ বিষয়ে কোনো তথ্য সংগ্রহের সিষ্টেমই তারা রাখেন নি।’

তবে একই বিষয়ে ভীন্ন চিত্র দেখা গেছে অন্য দেশের দূতাবাসের বেলায়। ফ্রান্সে নিযুক্ত সেনেগালের দূতাবাস প্রতিদিনই ফ্রান্স প্রবাসী সেনেগালীদের তথ্য প্রকাশ করছে। ফ্রান্সে নিযুক্ত সেনেগালের রাষ্ট্রদূত জেনারেল আমাদু জালো জানিয়েছে- ফ্রান্সে অবস্থানরত অন্তত ১৫ জন সেনেগালী নাগরিক করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

সেনেগালের দূতাবাস তার নাগরিকদের তথ্য সংগ্রহ করতে পারলেও বাংলাদেশ দূতাবাস কেন পারছে না এমন প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে প্রবাসী বাংলাদেশীদের মাঝে। তারা বলছেন- এক দূতাবাস তার নাগরিকের খবর নিতে সক্ষম আবার একই দেশে থেকে আরেক দূতাবাস একই খবর নিতে পারে না, তা রহস্যজনক। সময়ক্ষেপন না করে এ সময়ে অসহায় প্রবাসীদের পাশে দাঁড়ানোর দাবি জানিয়েছেন তারা।

এদিকে একাধিক সূত্র থেকে পাওয়া খবরে জানা গেছে, যেসব বাংলাদেশী করোনা আক্রান্ত হয়েছেন আবার প্রকোপটা বেশি নয়, তারা বেশি সমস্যায় পড়েছেন। প্যারিসে বসবাসকারী বাংলাদেশীদের বেশিরভাগই বিভিন্ন ম্যাস ভাড়া করে থাকেন। এদের মধ্যে যারা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন আবার প্রকোপ কম। হাসপাতাল তাদের ওষুদ দিয়ে বাসায় আইসোলোশনে থাকার কথা বলছে, আবার অন্যদিকে এসব ম্যাস তাদের গ্রহণে অস্বীকৃতি জানাচ্ছে। ফলে এরা পড়েছেন বেশি সমস্যায়। অনেকেই ১/২ রাত রাস্তায় রাত কাটানোর মতো ঘটনাও ঘটেছে। শেষ অবদি কমিউনিটির নেতৃস্থানীয় ব্যক্তিবর্গ এগিয়ে আসলেও দূতাবাস এর কোনো খবরই রাখে না। আর এ নিয়ে ক্ষোভের শেষ নেই প্রবাসী বাংলাদেশীদের।

সম্পাদক: শাহ সুহেল আহমদ
প্যারিস ফ্রান্স থেকে প্রচারিত

সার্চ/খুঁজুন: