মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বিশ্বপ্রবাস বই ও কাজী এনায়েত উল্লাহ




মোহাম্মদ রুবেলঃ

মনের গহীনে লালনকৃত স্বপ্নকে কিভাবে মেধা ও যোগ্যতার সমন্বয়ে বাস্তবরুপ দিতে হয় তার এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত ফ্রান্সে বসবাসরত জনাব কাজী এনায়েত উল্লাহ। নিখাঁদ দেশপ্রেম ও প্রতিজ্ঞায় অবিচল থেকে নিজেকে বিকশিত করে দশের আশু মঙ্গলের জন্য কাজ করার সৌভাগ্য সকলের হয় না।যে কয়েকজন সৌভাগ্যবানের হয়েছে তার একজন হলেন জনাব এনায়েত উল্লাহ সাহেব।

গত মাস খানেক আগে ভিয়েনা প্রবাসী নিভৃতচারী একনিষ্ঠ সমাজ সেবক জনাব পারভেজ মনোয়ার সাহেব কর্তৃক আমি এই বইটি পড়ার সুযোগ পাই।বেশ কয়েকবার পড়েছি এবং যতবারই পড়েছি ততবারই আমার অন্তচক্ষুর দ্বার উন্মোচিত হয়েছে। বইটি আমার ভুল না হলে অতি ক্ষুদ্র জ্ঞানে বলতে পারি আত্মজীবনীমূলক।আশির দশকে যখন বাংলাদেশের ভাগ্যাকাশে মিলিটারি হায়নাদের জয়জয়কার তখন সম্ভাবনাময় ছেলেগুলো ইয়োরোপে গিয়ে কোন রকম সেটেল হলেই তৃপ্তির ঢেকুর তুলতো।কিন্তু জনাব এনায়েত সাহেব শত প্রতিকূলতাকে জয় করে বিখ্যাত সরবোন বিশ্ববিদ্যালয় হতে উচ্চ শিক্ষা শেষ করে হয়েছেন সফল উদ্যোক্তা ও বিজনেস আইকন।

তিনি কত অর্থের অধিকারী সেটা মুখ্য নয়।বিষয়টা হলো নিজের সমৃদ্ধির সাথে বাঙালি কমিউনিটির সমন্বিত উন্নয়ন সাধন। তিনি আয়েবা প্রতিষ্ঠার জন্য যে নিরলস শ্রম দিয়েছেন তার জন্য আমরা ইয়োরোপে বসবাসকারী বাংলাদেশীরা কৃতজ্ঞ।আয়েবার মাধ্যমে কার্যকরী পদক্ষেপে এই পর্যন্ত প্রায় দশহাজার বাংলাদেশী ইয়োরোপে বৈধ হবার সুযোগ পেয়েছে।স্বপ্ন সবাই দেখে। সেই স্বপ্ন হয় নিজকেন্দ্রীক।ব্যক্তি এনায়েত সাহেবের বেলায় সেটা হয়েছে সামগ্রিক।

এবার আসি আরেক স্বপ্নাচারী সমাজ সেবক জনাব মনোয়ার পারভেজ সাহেব প্রসঙ্গে, যিনি কাজ করেন নীরবে নিভৃতে অপামর মানুষের কল্যাণে দলমতে উর্দ্ধে উঠে। বৃহত্তর নোয়াখালীর অসংখ্য ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা অস্ট্রিয়ায় বসবাসরত মানুষদের তিনি একসুতায় বেঁধে যে নজির সৃষ্টি করেছেন তা অন্যান্য কমিউনিটির জন্য অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। বর্তমান অস্ট্রিয়ার বাংলাদেশী কমিউনিটির সবচেয়ে গ্রহনযোগ্য সামাজিক ব্যক্তিত্ব জনাব মনোয়ার পারভেজ কাজ করছেন প্রবাসীদের জন্য পেনশন প্রকল্প নিয়ে। তিনি ইতোমধ্যে এই প্রকল্পের একটি গবেষণালব্ধ রুপকল্প দিয়েছেন যা আয়েবার ভিয়েনা সামিটে উপস্থাপন করা হয়। একজন সাধারণ সচেতন বাংলাদেশী হিসেবে আমি আয়েবার নেতৃবৃন্দের নিকট বিনীত আহ্বান জানাচ্ছি বিষয়টা অতিদ্রুত বিবেচনা করে বাংলাদেশ সরকারের নিকট দাবী হিসেবে পেশ করার।

পরিশেষে আমি আমার সকল বন্ধু ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের দৃষ্টি আকর্ষন করছি জনাব কাজী এনায়েত উল্লাহ রচিত বিশ্বপ্রবাস বইটি পড়ার জন্য। পাশাপাশি জনাব মনোয়ার পারভেজ ভাইকে ধন্যবাদ এত ভালো একটি বই আমাকে উপহার দেওয়ার জন্য।

সম্পাদক: শাহ সুহেল আহমদ
প্যারিস ফ্রান্স থেকে প্রচারিত

সার্চ/খুঁজুন: