শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩ খ্রীষ্টাব্দ | ১৫ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ফ্রান্সে পরিবার পুনর্মিলন পদ্ধতি নিয়ে প্যারিসের রাজপথে বাংলাদেশীরা




শাবুল আহমেদ, প্যারিস (ফ্রান্স) :

ফ্রান্সে পরিবার পুনর্মিলনী ভিসা প্রদানের প্রক্রিয়া দ্রুত ও সহজীকরণের জন্য ফ্রান্সে বসবাসরত বাংলাদেশিদের আন্দোলন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে।
এ উপলক্ষে সামাজিক এসোসিয়েশন সলিডারিতে অ্যাসি ফ্রঁস (সাফ)’র উদ্যোগে রবিবার (২৭ নভেম্বর) দুপুর ১ টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত Place de la Bourse থেকে Place du Palais Royal পর্যন্ত এক পদযাত্রা অনুষ্ঠিত।
আয়োজিত এ আন্দোলনে বাংলাদেশি প্রবাসীদের পাশাপাশি বিভিন্ন দেশের মানুষ ও সোশ্যাল এসোসিয়েশন La Cimade, Ligue des Droits de l’Homme, Droit Au Logement, CSP75, ASIA-এর নেতৃবৃন্দ এতে অংশ নেয়।
অনুষ্ঠিত এ আন্দোলনে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্যারিস ১৮ এর কাউন্সিলর আনজুমান সিসকো, লা সিমাদ- ইল দ্য ফ্রঁস’র সেক্রেটারি মারি, ফরাসি সাংবাদিক
মেলিন ইসক্রুহুলিয়া, ASIA প্রেসিডেন্ট ওবায়দুল্লাহ কয়েছ, Membre de Liberté, Égalité Papiers-এর এলিস।
এছাড়া সাফ সদস্য ও সেচ্ছাসেবী জুলহাস, মামুন, শাহিন আহমদ, আতিক রহমান, মনি বিশ্বাস, আনোয়ার হোসাইন ফয়সাল, সাইদুর রহমান, পারভেজ ফখরুল ইসলাম, সাদ মাহবুবুর রহমান, হাসান আলমগীর এম, তানজিম আহমদ তুহিন, রুমন আহমদ চম্পা রানী পাল, শাহীনুর আলম তালুকদার।


আয়োজিত এ আন্দোলনকে সমর্থন করেন ফ্রান্সের রাজনৈতিক দল ফ্রেঞ্চ কমিউনিস্ট পার্টি।
আয়োজক সংগঠন Solidarités Asie France (SAF)-‘র প্রতিষ্ঠাতা ও প্রেসিডেন্ট নয়ন এনকে বলেন, ফ্রান্স মানবিক আদর্শ চর্চার অন্যতম একটি দেশ। এখানে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের মানুষ বসবাস করে থাকেন। বিশেষ করে নিয়মিত অভিবাসীরা তাদের পরিবারকে কাছে পেতে স্ব স্ব দেশেস্থ ফরাসী দূতাবাসে ভিসার জন্য আবেদন করেন। এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বাংলাদেশী আবেদনকারীও রয়েছে। তিনি বলেন এসব আবেদনে পরিপ্রেক্ষিতে ফরাসি দূতাবাসগুলো পরিবার পুনর্মিলনীর ভিসা প্রদানে দীর্ঘ সময় ক্ষেপণ এবং নানা অজুহাতে ভিসা আবেদন নামঞ্জুর করা হয়ে থাকে। ফলে ফ্রান্সে বসবাসকারী বাংলাদেশিদের পরিবার ভিসাপ্রাপ্তির ক্ষেত্রে নানা অনাকাঙ্ক্ষিত এবং অযৌক্তিক হয়রানির শিকার হয়। আমরা চাই এসব সমস্যা সমাধানে ফ্রান্স সরকার যেন দ্রুত এবং কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহন করে।
প্রসঙ্গত, SAF-এর প্রেসিডেন্ট নয়ন এনকে বাংলাদেশিদের এই সমস্যা নিয়ে তার La France Insoumise দলের গুরুত্বপূর্ণ নেতা এবং ফরাসী সংসদ সদস্য Daniele Obono এর সাথে এর আগে দেখা করেন এবং বিস্তারিত আলাপ করে তাকে বোঝাতে সক্ষম হয়েছিলেন যে, দীর্ঘদিন ধরে বাংলাদেশী পরিবারগুলো ‘পুনঃ একত্রীকরণ’ ও ‘পুনর্মিলনী’ ভিসা আবেদনকারীদের ২ থেকে ৫ বছর পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয় ভিসা পাওয়ার ক্ষেত্রে।
এ ব্যাপারে ফরাসি সাংসদ সদস্য Daniele Obono এই পরিস্থিতির সাথে সংহতি প্রকাশ করেন এবং ২১ জানুয়ারি ২০২১ তিনি বিষয়টি আলোকপাত করে বাংলাদেশে ফরাসি দূতাবাসে একটি চিঠি লিখেন। চিঠি লেখার কিছুদিন পরে থেকে অনেক ভালো ফলাফল পাওয়া, ফলে ইতিমধ্যে অনেকের পরিবার ভিসা পায়। সম্প্রতি আবার অনেকের ক্ষেত্রে দীর্ঘসূত্রিতা দেখা দেয়। এই পরিস্থিতি বিবেচনা করে Solidarités Asie France এ আন্দোলনের সিদ্ধান্ত নেয়।

সম্পাদক: শাহ সুহেল আহমদ
প্যারিস ফ্রান্স থেকে প্রচারিত

সার্চ/খুঁজুন: